বুধবার, ১৯ আগস্ট, ২০২০

কিছু বই কিছু কথা || নীলাঞ্জন কুমার || রোদের প্রার্থনা

কিছু বই কিছু কথা । নীলাঞ্জন কুমার 

রোদের প্রার্থনা । নির্মল বসাক । ইয়ং রাইটার্স । দশ টাকা ।

' এখন জেনে গেছি কবি মারা গেলে শুঁড়ির দোকানী ছাড়া/  আর কাক পক্ষীটিও জানে না ।  ' কিংবা ' আমার মিইয়ে যাওয়া শব্দমালাকে একটু ঝরঝরে করে তুলি / তারপর যদি যেতে বলো বিষের সমীপে আমি গাঢ় হয়ে যাব ' -এর মতো বশ করে রাখার মতো পংক্তি লিখতেন প্রয়াত কবি নির্মল বসাক । কবির দীর্ঘ কবিতা জীবনে যে কবিতার  সন্ধান পাই তাতে এক মায়ামাখা অতি সাধারণভাবে বলে যাওয়ার যে কৌশল তিনি পাঠকবর্গকে চিনিয়েছেন তা শিক্ষণীয় হয়ে ওঠে তাঁর কাব্যগ্রন্থ 'রোদের প্রার্থনা ' ( প্রকাশ ১৯৮৭) -য়।
           সে কারণে জম্পেশ করে মনে ধরে যায় এই সব পংক্তি যা নিয়ে ভাবতে ভাবতে এক অতিন্দ্রিয় অবস্থানে  পৌঁছোবার চেষ্টা করা যায় । ' হাতের তালুতে যখন গন্ধ পাওয়া যায়/  বালিকা বাজিয়ে যায় তুমুল খুশির ম্যারাকাস/  সেই গন্ধে গভীর প্রবাস ।' ( ' গন্ধ নিয়ে ') ,
' কুয়াশা সরিয়ে পৃথিবীটা এখনো মাঝে মাঝে ভুল হয়ে যেতে চায় নাকি ' ( ' বোধোদয় ') , ' এই হতভাগা দেশে আমরা কাজ করতেও শিখিনি/  প্রেম করতেও শিখিনি ' ( ব্যস ) এর মতো পংক্তির ভেতর দিয়ে কবির তুমুল শব্দপ্রকরণ ও জাদুবাস্তবতা তন্নিষ্ঠ করে ।
            কবি জানিয়ে গেছেন কবিতার জন্য কোন ভুলভুলাইয়ার প্রয়োজন নেই । ' রোদের প্রার্থনা ' সে কারণে সার্থক । তিনি বেঁচে থাকবেন এ কারণে পাঠক মনে । শ্যামল সেনের প্রচ্ছদ কবিতার  মতোই সোজাসাপ্টা ।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

শব্দব্রাউজ ৩০ || নীলাঞ্জন কুমার || "আই-যুগ"-এর কবিতা

  শব্দব্রাউজ  ৩০  ||  নীলাঞ্জন কুমার বিপাশা আবাসন তেঘরিয়া ২৯।১১।২০২০ সকাল ৮-৩২ মিনিট । পান্নালাল ভট্টাচার্যের কথা খুব মনে পড়ছে । তাঁর শ্যামা...