রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

ডুয়ার্স ভূমির কথন || পর্ব চার || নিলয় মিত্র।

 ডুয়ার্স ভূমির কথন। পর্ব চার।

নিলয় মিত্র। 




    সাঁওতাল সমাজের প্রাচীন বিবাহ পদ্ধতি আজও অনেকে

অনুসরণ করেন।

১.কিরিঙ-বাই-বাপলা: কনে দেখতে যাবার সময় কনো অশুভ ঘটনা দৃশটিপথে পড়লে ,তাঁরা সে বাড়িতে বৈবাহিক  সম্বন্ধ করেননা।গরু

বাঘের ছাপ, কিংবা জল ভরা 

কলসি দেখা শুভ লক্ষণ।আগুন,সাপ,বা স্ত্রীলোকের মাথায় জ্বালানি কাঠের বোঝা 

দেখা অশুভ লক্ষণ।বিয়ের কয়েক দিন আগে বিয়ের মন্ডপ তৈরি করা হয়।জাহের এরা,মড়েকো এবং মারাং বুরুর উদ্দেশ্যে তিনটি মুরগি 

উৎসর্গ করা হয়।পূর্বপুরুষের উদ্দেশ্যে হাঁড়িয়া উৎসর্গ করা হয়।এ বিয়েতে শুধু কন্যাপন দরকার করা হয়।

২.টুংকি-দিপিল-বাপলা:এটা গরিবদের বিয়ে,ঢাক ঢোল বাজেনা।

৩.ওর-আদের-বাপলা: হিন্দু শাস্ত্র মতে এ হলো রাক্ষস বিয়ে।ছেলে মেয়েকে পছন্দ করেছে কিন্তু মেয়ে ছেলেকে পছন্দ করেনি।ছেলে জোর করে মেয়েকে বিয়ে করেছে।

৪.ইর-বল-বাপলা:,ছেলে মেয়ে

রাজি,কিন্তু অভিভাবক বাধা দিচ্ছেন।জগমাঝির সাহায্যে 

মেয়ে সংসারে প্রবেশ করে।

৫.ইতয়-সিঁদুর-বাপলা:এ হলো 

জবরদস্তি মূলক বিয়ে।ছেলে মেয়ের ভাব ভালোবাসা আছে

কিন্তু অভিভাবক বাধা দিচ্ছে।এবার ছেলে একদিন সুযোগ

মত্ জোর করে মেয়ের সিঁথিতে সিঁদুর লাগিয়ে দেয়।

মেয়েটি চলে যায় স্বামীর সাথে।

৬.সাঙ্গা:বিধবা বা স্বামী পরিত্যক্ত মেয়ের সাথে বিয়ে।

৭.কিরিও জাওয়ার বাপলা:

এই বিয়েতে বরপন দিয়ে জামাই ক্রয় করা হয়।

    সাঁওতালরা অন্য সম্প্রদায়ে 

বিয়ে করলেও তা ভালো চোখে দেখা হয়না।

সাঁওতালরা মৃতদেহ দাহ করে।যাঁরা খ্রিষ্ট ধর্ম গ্রহণ করেছেন তাঁরা কবর দেন। অন্তঃসত্ত্বা নারী বা শিশুর মৃতদেহ দাহ করা হয়না।শ্বশানে যাবার পথে খই ও তুলা বীজ ছড়িয়ে 

দেয়।চিতা সাজানোর পরে একটি মুরগির বাচ্চা বলি দেওয়া হয়।পাঁচদিন পর "তলনাহান" অনুষ্ঠান হয়।তখন মারাংবুরু ও পূর্বপুরুষ

দের উদ্দেশ্যে মুরগি ও হাঁড়িয়া

উৎসর্গ করা হয়।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

শব্দব্রাউজ ২১৫ ৷। নীলাঞ্জন কুমার || Shabdo browse, Nilanjan Kumar

  শব্দব্রাউজ ২১৫ ৷। নীলাঞ্জন কুমার || Shabdo browse, Nilanjan Kumar শব্দব্রাউজ ২১৫ || নীলাঞ্জন কুমার বিপাশা আবাসন তেঘরিয়া মেন রোড কলকাতা ১৭।...