মঙ্গলবার, ১৩ অক্টোবর, ২০২০

কিছু বই কিছু কথা। নীলাঞ্জন কুমার সাতাশ তারার আলো । অসীমকুমার বসু

কিছু বই কিছু কথা। নীলাঞ্জন কুমার 



সাতাশ তারার আলো । অসীমকুমার বসু । পাঠক । আশি টাকা ।


অসীমকুমার বসু সেই কবি যিনি পার্থিব দিক লক্ষ্য করে নির্বিবাদে অপার্থিবের সন্ধান গড়ে তুলতে পারেন । তাঁর কাব্যগ্রন্থ ' সাতাশ তারার আলো ' তে পাই:  ' তিনি কি তাঁর নিজের জীবনের আনন্দ ও ব্যর্থতা/  চাপিয়ে দিয়েছেন এই ছবির মানুষটির উপর?  '  ( ' ছবির মানুষ '), ' তাই এই হিমরাতে আগুনের পাশে বসে/   মায়া ঝলসানো উষ্ণতায়  / ধূসর পাণ্ডুলিপির মতো/  তাদের বিবর্ণ অনুজ্জ্বল রেশটুকু টের পাই ।' ( ' প্রত্নতত্ত্ব ') এর মতো পংক্তি তার জানান দেয় । এবাদেও পেয়ে যাই তাঁর আরো কিছু উজ্জ্বল উচ্চারণ:  '  তবুও অপেক্ষা থাকে ডাকপিওনের / গাছে জল দিতে দিতে ভাবি/  দরজার ওপারে ছোট্ট ঘড়িটি কি এখনই বেজে উঠলো? ' ( ' হ্রদের পাশের জীবন ') , ' হয়তো ভুলেও গেছে/  মোমবাতির আলোয়/  সকলে গোল হয়ে বসে/  একটি সম্পূর্ণ কবিতা পড়ার কথা ছিল । ' ( ' ছেঁড়া কবিতার  কড়চা ')। 

            কবির চিন্তার বিস্তার তাঁর অতীতের অনেক কাব্যগ্রন্থে দেখতে পাই । তাঁর পরিশিলিত কাব্যিক দ্যোতনার ভেতরে তেমন জটিলতা নেই,  আছে সারল্য ও মন্ত্রমুগ্ধ করার কৌশল । 

             চার ফর্মার বইটির ভেতরে কাব্যভাষা ও সামগ্রিক নৈসর্গিক প্রেম মাথাচাড়া দেয় । অনুভূতি প্রবণ  এই কবির বহু উচ্চারণ তাই ছেড়ে যেতে চায় না । ভালো লাগে তাঁর নিঃসঙ্গ বোধ,  রুচিময় অনুষঙ্গের সঙ্গে মাখামাখি করা উচ্চারণ  । বিপ্লব মন্ডলের প্রচ্ছদ নতুন কিছুর সন্ধান দিতে চেয়েছেন সাধারণ পটভূমিকায়  । তৃপ্তি পাই তাঁর প্রচ্ছদের কালার কম্বিনেশনের গুণে ।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

আশ্চর্য সহবাস || শ্রাবণী গুপ্ত || কবিতা

আশ্চর্য সহবাস শ্রাবণী গুপ্ত একটা গোটা জীবন আমরা গাছের বেড়ে ওঠা দেখলাম জাফরীর মতো আলো-ছায়া এসে পড়ল আমাদের গায়ে, হৃদয়ে তবু ঘৃণা করতে গিয়ে আম...