Wednesday, June 17, 2020

বুলগেরিয়ার নতুন কবিতা || রুদ্র কিংশুক || ইভো রাফাইলভ-এর কবিতা

বুলগেরিয়ার নতুন কবিতা 
রুদ্র কিংশুক 
ইভো রাফাইলভ-এর কবিতা


ইভো রাফাইলভ (Ivo Rafailov, 1977)-র জন্ম বুলগেরিয়ার বুরগাস শহরে।  সোফিয়ার সেইন্ট  ক্লিমেন্ট ওহোরিডস্কি ইউনিভার্সিটি থেকে তিনি কালচারাল স্টাডিজ বা সংস্কৃতি শাস্ত্র নিয়ে পড়াশোনা করেছেন। পেশায় তিনি একজন গ্রাফিক ডিজাইনার ।এ পর্যন্ত প্রকাশিত হয়েছে তাঁর দুটি কাব্যগ্রন্থ। সাম্প্রতিকতমটির নাম   Countless Temptations (2013)। কবিতা এবং ফটোগ্রাফি --- এই দুইয়ের জন্যই  তিনি পুরস্কৃত হয়েছেন। ফ্রস্ট প্রেস (Frost Press) নামক একটি নতুন প্রকাশনা সংস্থার প্রতিষ্ঠাতা তিনি যে প্রকাশনা থেকে থেকে সাম্প্রতিককালের আমেরিকান কবিতার বুলগেরীয় কবিতার বুলগেরীয়  অনুবাদের একাধিক সংকলন প্রকাশিত হয়েছে।

১. আমরা শেষ করলাম স্বাভাবিক ভাবেই

সে মেয়েটি
আমাকে চোখে দেখল

এবং বলেই চলল
নিবেদিত প্রেমে সহজ আনন্দ,

 জোর দিয়ে বলেই চললো--  সে হর্ষচিত্তে
 রেখেছিল একজন ভালো লেখকের কাছে,

ব্যাখ্যা করলো কীভাবে সে দেখে
মৃত্যুর দিকে চোখ বন্ধ করা লেখকদের

শেষ পর্যন্ত সে পৌঁছে  গেল আমার গ্লাসের কাছে
 এবং বলল: আমি খাব এই জলপাই ।

 ধীরে ধীরে সে
সেটাই করলো

তাই আমি দেখলাম
এটা কী রকম

যখন একটা মাছি গোপনে
 ঢুকে গেল
 একটা দগদগে ক্ষতে।

২. প্রথম প্রেমের বিবিধ নিন্দা

এটা ঠিক পোলিশ কবিতার গল্পের মতো

সংকলন শুরু হয়
 মিলোজ, সিমবোরস্কা,  রোজেউইচ এবং হারবার্টকে দিয়ে
 কারোর সুযোগই নেই স্মরণযোগ্য কিছু বলবার:

 অতিরিক্ত বিবর্তনবাদ
 সংক্ষিপ্ত উত্তরাধুনিকতা
তুচ্ছ আবেগশীলতা ।

আর তারপর

কীভাবে তোমার সন্তানদের কাছে ব্যাখ্যা করবে
 যে তারা তোমার মহান প্রেমের সন্তান নয়
যে তারা বহন করছে না কৃতজ্ঞতার জিন।

 কীভাবে স্বীকার করবে

 যে তুমি তোমার জীবনে অভাব অনুভব করছো ভুলে যাবার চেষ্টায়
কারণ ভালোবাসা এত কাছে ছিল, তোমার সঙ্গে এত সমানুপাতিকতা,
যে তুমি প্রয়োজন অনুভব  একটা ভিন্ন ভাষার এটা সম্পর্কে কথা বলা থেকে বিরত থাকতে।

৩. দুয়ের জন্য এপিটাফ, অপসারিত তৃতীয়ের  দ্বারা

অনেক বছর সে বেঁচে ছিল
তার মৃত স্ত্রীর ভেতরে তা

(আর এটা ছিল এটাই )

এক বিকেলবেলায় এক বেড়াল
চাদরের ভেতরে আনল একটা পাখি।


৪. পরিত্যাগের মতো কোন ভূমি নেই

খোলা পরিসরে দ্বিতীয় রাতে ব্যারেন্টস গুনেছিলেন
১১ জন মানুষ  আর একটা পাখি ।

তার ডানা সবল হয়,
আর জাহাজের পাটাতন থেকে পাটাতন  জ্বলে ওঠে ।

পরিত্যাগের মতো কোনো ভূমি নেই
কারণ  একজন বড় হয়ে ওঠে
 অন্যদের দুর্দশার পাশাপাশি।



No comments:

Post a Comment

উনত্রিশ পয়েন্ট ফাইভ - ৪৪ || সোমনাথ বেনিয়া || কবিতা

 কবিতা উনত্রিশ পয়েন্ট ফাইভ - ৪৪ / সোমনাথ বেনিয়া জাগতিক সব কাজে গন্ধ আছে, জানে সময়, জানে মহাকাল গতিরেখা বরাবর ছুটলে একসময় হাতের মুঠোয় মথিত শৈ...