শুক্রবার, ১০ জুলাই, ২০২০

ইসোল্ট গনকে নিবেদিত কবিতা || রুদ্র কিংশুক || কবিতা

ইসোল্ট গনকে নিবেদিত কবিতা
রুদ্র কিংশুক



ডনিগাল হর্সফেয়ার থেকে আনা
  দুটি ঘোড়া---রেড পানি, গ্রে পনি,

 তাদের চোখের ভেতর সাইরাস নক্ষত্র

অ্যারান আইল্যান্ডে আমরা নতুন,
গ‍্যালওয়ে সমুদ্রে আমি তোমার প্রথম কলম্বাস,
 রাগী ঢেউয়ে ভিজে যায়  কুসুম মঞ্জুরী,
 যতোবার ছুঁই, আমার আঙ্গুল হয়ে ওঠে
আশ্চর্য স্ফটিক,  লাপিস লাজুলি

 তুমিই সেই আইরিশ দেবী,
কাছে এলে মৃত ডাল ভরে ওঠে ডানার উল্লাসে

সূর্যাস্তে ঘোড়া দুটিকে দানাপানি দিও,
 আমাকে না হয়  না  দিলে কিছুই...

২.


বেলবুলবেন টিলার নিচে
 আমাদের ছায়া গড়িয়ে গেল

কাউন্টি স্লাইগো, স্বপ্নের এই দেশ
 হেজেল গাছের ছায়ায় খোলা টেগারের কবিতা
 দুই কম্পমান আধারের ভেতর
আলোর সেতু
ভঙ্গুর, দোদুল্যমান, তবু লাবণ্যময়

বর্ষার রাত শ্রেয়া-মুখর হল
বহুদূর থেকে পাঠিয়েছো কস্তুরী ইথারে
আমি তার নোটেশন খুলে খুলে
পড়ে নিচ্ছি গত জন্মের না-বলা কথা

মাইগ্রেন, নাছোড় মাইগ্রেন
সোমনামবুলিস্ট অক্ষরমালা,

গত জন্মের মানচিত্র থেকে
তোমাকে কীভাবে জাগাবে, বল!

৩.
এস, আমার পাশে
টেগোরের গার্ডনার, আমাদের ফরাসি তর্জমা,
 বহুকাল অপেক্ষা করে আছে

একদিন চাঁদ উঠলে কুলপার্কে বসে
পড়া যাবে আমাদের
যৌথ কবিতাযাপন

বেতের চেয়ারে বসবেন টেগোর,
পাশে আলুথালু ইয়েটস্
বুড়ি গ্রেগরি  শোনের মতো চুল
 টি-পট থেকে ধীরে ধীরে ঢালবেন সুগন্ধি চা

তরুণ রবার্ট, সেই আশ্চর্য বৈমানিক,
 হারিয়ে গেছে অন্ধকারে, তার ছায়া
  তোমার দেশের দুঃখ আমাকেও কীভাবে জ্বেলেছে, 
তুমি সব জানো

টেগর অনুবাদ শেষ হলো আজ,
বর্ষারাতে কুলপার্কে লেডি গ্রেগরির বাড়ির ছাদ
 আমরা দুজনে দাঁড়িয়ে আছি
 কম্পমান যুবক-যুবতী

প্রেমের ভাষার নাম গেইলিক
 সামান্য আলো তার, বাকি সব  অসামান্য অন্ধকারে

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

আশ্চর্য সহবাস || শ্রাবণী গুপ্ত || কবিতা

আশ্চর্য সহবাস শ্রাবণী গুপ্ত একটা গোটা জীবন আমরা গাছের বেড়ে ওঠা দেখলাম জাফরীর মতো আলো-ছায়া এসে পড়ল আমাদের গায়ে, হৃদয়ে তবু ঘৃণা করতে গিয়ে আম...