শুক্রবার, ২ অক্টোবর, ২০২০

কিছু বই কিছু কথা || নীলাঞ্জন কুমার || কথার বাড়ি || নারায়ণ বিশ্বাস

 

কিছু বই কিছু কথা || নীলাঞ্জন কুমার



কথার বাড়ি । নারায়ণ বিশ্বাস । কবিতা সীমান্ত । একশো  টাকা।


' কবিতা লিখেছি বলেই আমি সাম্যবাদী । আমি শুদ্ধপ্রাণ । আমি ঈশ্বর সাধক । লান্ঞ্ছিত মানুষ,  শোষিত জীবনের আমি একজন হয়ে উঠি তখন ।' কবি নারায়ণ বিশ্বাসের ' কথার বাড়ি ' কাব্যগ্রন্থের ভূমিকাতে এইরকম ঠুনকো কথাবার্তার পর কবিতার ভেতরে গিয়ে হোঁচট খাই, যখন পাই:  ' জুড়াইতে গিয়েছি আমি,  জগন্নাথ ধামে;  / আমও গেছে ছালা যায়,  / অশিষ্ট জলের ডাক,  বাতাস ভ্রমর; / শাখা জুড়ে ফল দেখি,  অনর্ঘ বানর ।' - এর মতো উনবিংশ শতাব্দী মার্কা কবিতার    

' সাধক ' পংক্তির সামনে দাঁড়িয়ে । 

                যা হোক কবির ঈশ্বর সাধনের উদাহরণ এখানে পাওয়া গেলেও সাম্যবাদী উদাহরণ এধরনের  অখাদ্য সেকেলে চিন্তাভাবনা সহকারে পাই ' নভেম্বর বিপ্লব শতবর্ষ ', ' সাম্যের আশ্রয় ' কবিতায় । কবি কথা দিয়ে যে কবিতা বাড়ি তৈরি করতে চেয়েছেন , তা খুব পলকা হওয়ায়  সে বাড়ি আমফানের মতো ঝড়ে আদৌ টিকে থাকতে পারবে কিনা সন্দেহ আছে ।

              কাব্যগ্রন্থ পড়ে বুঝি তিনি  চার ফর্মার বইটিতে মাত্র একটি পাতে দেওয়ার মতো কবিতা লিখেছেন তা ' কথার বাড়ি ' । বোঝা যায় তার পংক্তি:  ' কথার গৃহ বৃদ্ধি পেয়ে কথার পাহাড় হবে । শরবিদ্ধ মানুষটিকে কিছুই ছোঁবে না । '  র মতো কবিতার পর কি করে তিনি একই বইতে ষাট সত্তর বছর পেছনে চলে যেতে পারলেন তা নিয়ে গবেষণা হতে পারে!  প্রদীপ চক্রবর্তীর প্রচ্ছদ তথৈবচ ।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

আশ্চর্য সহবাস || শ্রাবণী গুপ্ত || কবিতা

আশ্চর্য সহবাস শ্রাবণী গুপ্ত একটা গোটা জীবন আমরা গাছের বেড়ে ওঠা দেখলাম জাফরীর মতো আলো-ছায়া এসে পড়ল আমাদের গায়ে, হৃদয়ে তবু ঘৃণা করতে গিয়ে আম...