সোমবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০২০

কিছু বই কিছু কথা ২১৫ || নীলাঞ্জন কুমার || প্রিয় মাতৃমুখ || সুভাষ সরকার || নীললোহিত

 কিছু বই কিছু কথা ২১৫ ।  নীলাঞ্জন কুমার




প্রিয় মাতৃমুখ । সুভাষ সরকার । নীললোহিত
। তিরিশ টাকা ।


যে মানুষ মেঘ বোঝে,  বৃষ্টি বোঝে,  খরাক্লিষ্ট হলে /এও বোঝে - মাটি তাকে মরতে দেবে না । ' ( ' মাটির উপমা ') , ' সতী হল যে মেয়েটি মিথ্যা লোকাচারে/  আমি তাকে সুন্দর সাজাতে দেখেছি প্রত্যহ! ' ( ' সাংকেতিক ') এইরকম কবিতার নির্যাস ভাগ্যক্রমে পাই কবি সুভাষ সরকারের কাব্যগ্রন্থ ' প্রিয় মাতৃমুখ ' এর সান্নিধ্যে এসে ।
ইদানিং কবির কবিতা চোখে পড়ে না,  তবু ১৯৯৯সালের এই কাব্যগ্রন্থে যা পাই তা আজও পুণঃপাঠের পর নতুনভাবে তাঁর কবিতাকে আবিষ্কার করি। বারবার বেজে ওঠে তাঁর উচ্চারণ:  ' ঘুম ভাঙতে না ভাঙতেই / বাগানের গুচ্ছের গোলাপ চেয়ে বসল গত রাতের স্বপ্ন । / আর শূন্য যাদুঘর ঘুমের পোশাক । ' ( ' কিভাবে নিঃস্ব হই '), ' ঠিক যেভাবে দাঁড়ালে যন্ত্রণায় ভরে ওঠে বুক, / তুমি কি সেখানে দাঁড়িয়ে আছো? ' ( ' মিঠুর অসুখ ') ।
           কবির বৌদ্ধিক দিকটি তাঁর কবিতার প্লাস পয়েন্ট । তা যে কোন সিরিয়াস পাঠককে সমৃদ্ধ করবে। তাঁর কবিতার অন্তর্নিহিত মোচড়ে কবিতা  ভালোবাসার হয়ে ওঠে । এই কাব্যগ্রন্থে সেই উচ্চারণের কবিতা যেখানে প্রেম ব্যঙ্গ অসহায়তা  ইতিবাচক দিক সব যেন সাজানো বৈঠকখানায় ভীড় করে আর কবির সাজানোর গুণে অসাধারণ মাধুর্য ফুটে ওঠে ।
               কবির বেশিরভাগ কবিতা স্বচ্ছ ও কোমল । কবির শব্দকে নিয়ে অহেতুক মাতামাতি করার কোন ইচ্ছে নেই তা কবিতায়  বোঝা যায় । এই কবির কাছে আশা তিনি কামব্যাক করুন । লিখুন । যাতে সে কবিতা পড়ে পাঠকবর্গ বাড়তি অক্সিজেন পেতে পারেন । শ্যামল জানার প্রচ্ছদ তাঁর বৌদ্ধিক দিকটির পরিচয় দেয় । ' ওয়াও ' বলে উঠি ভেতর থেকে ।

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

আটপৌরে কবিতাগুচ্ছ- ৪/৪ || "আই-যুগ"-এর কবিতা দেবযানী বসু Debjani Basu

  আটপৌরে কবিতাগুচ্ছ- ৪/৪ || "আই-যুগ"-এর কবিতা দেবযানী বসু Debjani Basu আটপৌরে ৪/৪ ১. পুকুরের মুকুর উল্লাস প্রমাণ । সাক্ষ্য। অমিল- ...